কুষ্টিয়ায় পরকীয়া করতে গিয়ে প্রেমিকের মৃত্যু

রফিকুল ইসলাম, কুষ্টিয়া প্রতিনিধি : কুষ্টিয়ায় পরকীয়া করতে গিয়ে পুরুষাঙ্গ হারিয়ে অতিরিক্ত রক্তক্ষরণে এক প্রেমিকের মৃত্যু হয়েছে। নিহত ওই প্রেমিকের নাম হাবিবুর রহমান (৩৫)। এ ঘটনায় এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে।ঘটনাটি ঘটেছে মঙ্গলবার বিকেলে কুষ্টিয়ার দৌলতপুর উপজেলার আল্লার দর্গা’র গাড়া দাইড় পাড়া গ্রামে।

পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, আল্লার দর্গা’র মৃত সাইদ মাস্টারের ছেলে হাবিবুরের সাথে ওই এলাকার গাড়া দাইড় পাড়ার আমিরুল ইসলামের স্ত্রী স্বামী পরিত্যক্তা মাছুরা খাতুন (৩২) এর সাথে বেশ কিছুদিন আগে থেকে পরকীয়া প্রেম চালিয়ে আসছিল। এরই এক পর্যায়ে আজ মঙ্গলবার বিকেলে মাছুরা গাড়া দাইড় পাড়া তার বোনের বাড়িতে প্রেমিক হাবিবুরকে ডেকে নেয়। পরে মাছুরা ও হাবিবুর ফাঁকা বাড়িতে অসামাজিক কাজে লিপ্ত থাকা অবস্থায় প্রেমিকা মাছুরা প্রেমিক হাবিবুরের পুরুষাঙ্গ কামড়ে কেটে নেয়!

এ সময় হাবিবুরের আর্তচিৎকারে আশপাশের লোকজন ছুটে এসে তাকে উদ্ধার করে কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে আসে। সেখানে চিকিৎসার এক পর্যায়ে সন্ধ্যা ৭ টার দিকে তার মৃত্যু হয়। পরে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য হাসপাতালের মর্গে পাঠায়।

অপর একটি সূত্র জানিয়েছে, মাছুরার সাথে হাবিবুর পরকীয়ায় জড়িয়ে পড়ে বেশ কিছুদিন মেলা মেশার পর ইদানিং মাছুরাকে আর পাত্তা দিচ্ছিল না এবং মাছুরা বিয়ের কথা বললে হাবিবুর নানা টালবাহানা করছিল। প্রতিশোধ নিতেই এরই মাঝে কৌশলে হাবিবুরকে ডেকে নিয়ে মাছুরা তার প্রেমিক হাবিবুরের পুরুষাঙ্গ কামড়ে কেটে ফেলেন।

কুষ্টিয়া মডেল থানার এ এস আই আতিকুর রহমান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *