crimepatrol24
২০শে জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, এখন সময় ভোর ৫:৩৩ মিনিট
  1. অনুসন্ধানী
  2. অপরাধ
  3. অর্থনীতি
  4. আইটি বিশ্ব
  5. আইন-আদালত
  6. আঞ্চলিক সংবাদ
  7. আন্তর্জাতিক
  8. আফ্রিকা
  9. আবহাওয়া বার্তা
  10. আর্কাইভ
  11. ইউরোপ
  12. ইংরেজি ভাষা শিক্ষা
  13. উত্তর আমেরিকা
  14. উদ্যোক্তা
  15. এশিয়া

হোমনায় আইন-শৃঙ্খলা কমিটির সভা অনুষ্ঠিত

প্রতিবেদক
মো: ইব্রাহিম খলিল
জুন ২০, ২০১৯ ৩:২২ অপরাহ্ণ

মো. ইব্রাহিম খলিল, হোমনা,কুমিল্লা>>

 কুমিল্লার হোমনায় আইন-শৃঙ্খলা কমিটির মাসিক সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। আজ বৃহস্পতিবার দুপুর ১২ টায় উপজেলা পরিষদ সম্মেলন কক্ষে এই সভা অনুষ্ঠিত হয়।
উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও আইন- শৃঙ্খলা কমিটির সভাপতি আজগর আলীর সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও আইন-শৃঙ্খলা কমিটির উপদেষ্টা রেহানা বেগম, থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সৈয়দ মো. ফজলে রাব্বী, পৌরমেয়র অ্যাড. মো. নজরুল ইসলাম, উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান মো. মহাসিন সরকার , মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান নাছিমা আক্তার, উপজেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা নাসিমা আক্তার, ইউপি চেয়ারম্যান মো. মফিজুল ইসলাম গনি, মো. জালাল উদ্দিন পাঠান, মো. জালাল হোসেন, মো. শাহজাহান মোল্লা, মো. নাজিরুল হক ভূঁইয়া ,মো. তাইজুল ইসলাম, মুক্তিযোদ্ধা মো. আবুল কাসেম প্রধান, হোমনা উপজেলা প্রেসক্লাবের সভাপতি মো. ইব্রাহিম খলিল, হোমনা প্রেসক্লাবের সভাপতি মো. আবদুল হক সরকার, হোমনা উপজেলা প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক মো. আক্তার হোসেন, সাংবাদিক মো. কামাল হোসেন প্রমুখ।সভায় অন্যান্য সদস্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তা ও ইউপি চেয়ারম্যানবৃন্দ। 

সভায় বক্তারা মাদক, জুয়া, চুরি, ডাকাতি, ছিনতাই, খুন, ধর্ষণ, বাল্যবিবাহ,  ঈদের আনন্দের নামে উঠতি বয়সের যুবকেরা বিভিন্ন ট্রাক, ট্রাক্টর ও নসিমনে উচ্চস্বরে সাউন্ড সিস্টেম লাগিয়ে নেচে-গেয়ে আনন্দ-ফুর্তি করা, সাধারণ জনগণ যাতে নির্বিঘ্নে ও নিরাপদে স্বাভাবিকভাবে রাস্তায় ও ফুটপাত দিয়ে চলাফেরা করতে পারে, লাইসেন্সবিহীন রিক্সা ও অটোরিক্সার লাইসেন্স ইত্যাদি বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনা করেন। ২/১ টি বিচ্ছিন্ন ঘটনা ছাড়া  হোমনার আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি স্বাভাবিক রয়েছে বলেও মত দেন বক্তারা।

সভায় থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সৈয়দ মো. ফজলে রাব্বী তার বক্তব্যে বলেন, আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখা ও অপরাধের মাত্রা কমিয়ে আনা কেবল পুলিশের একার পক্ষে সম্ভব নয়। এ ক্ষেত্রে এলাকার জনপ্রতিনিধি, শিক্ষক, সাংবাদিক , অভিভাবক ও সমাজের গণ্যমান্য ব্যক্তিদেরকে যার যার অবস্থান থেকে ভূমিকা রাখতে হবে।বিশেষকরে অভিভাবকদেরকে তাদের সন্তানের খোঁজখবর রাখতে হবে।তাদের সন্তানেরা কখন, কোথায় অবস্থান করে, কার সাথে মেলামেশা করে সে বিষয়ে সজাগ থাকতে হবে।

Share This News:

সর্বশেষ - লাইফ স্টাইল