crimepatrol24
৩০শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, এখন সময় সকাল ৯:৪২ মিনিট
  1. অনুসন্ধানী
  2. অপরাধ
  3. অর্থনীতি
  4. আইটি বিশ্ব
  5. আইন-আদালত
  6. আঞ্চলিক সংবাদ
  7. আন্তর্জাতিক
  8. আফ্রিকা
  9. আবহাওয়া বার্তা
  10. আর্কাইভ
  11. ইউরোপ
  12. ইংরেজি ভাষা শিক্ষা
  13. উত্তর আমেরিকা
  14. উদ্যোক্তা
  15. এশিয়া

পাবনা চাটমোহরের প্রমত্তা বড়াল নদী এখন ফসলের মাঠে পরিনত, দেখার কেউ নেই!

প্রতিবেদক
মো: ইব্রাহিম খলিল
মে ১৫, ২০১৯ ৪:০৫ অপরাহ্ণ

পাবনা প্রতিনিধি :

পাবনার চাটমোহর উপজেলার মধ্য দিয়ে প্রবাহিত বড়াল নদী এখন ফসলের মাঠে পরিণত হয়েছে। বড়াল পাড়ের মানুষজন নদী দখল করে অবৈধ স্থাপনা নির্মাণের পাশাপাশি হরেক রকম ফসলের চাষাবাদ করছেন। নদীর বিশাল এলাকাজুড়ে এখন বোরো ধানের সমারোহ। দেখলে মনে হবে বিশাল ফসলের মাঠ। একই সাথে দখল প্রক্রিয়া অব্যাহত রয়েছে।

নদীর পানিপ্রবাহ স্বাভাবিক করতে একদিকে বাঁধ অপসারণসহ বিভিন্ন পদক্ষেপ নেওয়া হচ্ছে। অপরদিকে ,বড়ালের পাড় দখল করে মার্কেট ও রাস্তা তৈরি করাসহ বিভিন্ন স্থাপনা গড়ে তোলা হচ্ছে। নদীর বিভিন্ন অংশ প্রতিনিয়ত দখল করা হচ্ছে। নদীর দুই পাড়ে গড়ে উঠেছে বসতবাড়ি আর ব্যবসা প্রতিষ্ঠান। একই সাথে ধান, গম, রসুন,পেঁয়াজের আবাদ হচ্ছে। এতে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন বড়াল রক্ষা আন্দোলনের সঙ্গে যুক্ত ব্যক্তিরা।

জানা গেছে,১৯৮০ সাল পর্যন্ত বড়াল নদী পানিপ্রবাহ ছিল। ১৯৮১ সালে রাজশাহীর চারঘাটে পদ্মা থেকে বড়ালের উৎসমুখে ও পাবনার ভাঙ্গুড়া উপজেলার সীমান্ত এলাকা দহপাড়ায় পানি উন্নয়ন বোর্ড (পাউবো) দুটি জলকপাট নির্মাণ করে। এতে পানিপ্রবাহ বাধাগ্রস্ত হয়। ফলে নৌযান চলাচল ব্যাহত হতে থাকে। স্থানীয় বাসিন্দারা তখন নদ পারাপারের জন্য সেতু তৈরির দাবি তোলেন। কিন্তু সেতু না করে বড়ালে চারটি আড়াআড়ি বাঁধ নির্মাণ করা হয়। এতে বড়ালে পানিপ্রবাহ বন্ধ হয়ে যায়। দিনে দিনে দখল-দূষণে ২২০ কিলোমিটার দৈর্ঘ্যের বড়াল পরিণত হয় মরা খালে। পানি না পেয়ে ব্যাহত হতে থাকে বিস্তীর্ণ চলনবিলের চাষাবাদ।

২০০৮ সালে বড়াল রক্ষায় তৈরি হয় আন্দোলন কমিটি। সহায়তা করে বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন (বাপা),পরিবেশ আইনবিদ সমিতি (বেলা), এএলআরডিসহ বিভিন্ন সংগঠণ। বড়া রক্ষা আন্দোলন কমিটির নিয়মিত সভা,সমাবেশ, মানববন্ধনসহ বিভিন্ন কর্মসূচির পরিপ্রেক্ষিতে বেলার দায়ের করা রিট মামলায় উচ্চ আদালত বড়াল থেকে সব বাঁধ ও জলকপাট অপসারণের নির্দেশ দেন সরকারকে। সে অনুযায়ী বাঁধ অপসারণ করে সেতু নির্মাণ করা হয়। এতে স্বস্তি ফিরতে থাকে বড়ালপাড়ের বাসিন্দাদের। কিন্তু বড়াল দখল প্রক্রিয়া অব্যাহত থাকে। মরা বড়ালের তলদেশে শুরু হয় ফসলের আবাদ। নাটোরের বড়াইগ্রাম থেকে চাটমোহরের চরমথুরাপুর পর্যন্ত বড়ালের ৪০ কিলোমিটার এলাকা জুড়ে চলছে চাষাবাদ।

Share This News:

সর্বশেষ - লাইফ স্টাইল

আপনার জন্য নির্বাচিত
সুন্দরগঞ্জে ৭ জুয়ারী গ্রেফতার

সুন্দরগঞ্জে ৭ জুয়ারী গ্রেফতার

হোমনায় বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষের সঙ্গে ইউএনও’র মতবিনিময়

কেএমপি’র কমিশনারকে খুলনা মেট্রোপলিটন শ্যুটিং ক্লাবের আজীবন সদস্য পদ প্রদান

ঈশ্বরদীতে ট্রেনে কাটা পড়ে একজনের মৃত্যু

জুয়া-মাদকের ক্ষেত্রে কোনো ছাড় নয়

খুটাখালী বনাঞ্চলে ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযানে ৪টি ড্রেজার মেশিন জব্দ

ঝিনাইগাতীতে হত দরিদ্রদের মাঝে ছাগল বিতরণ

ঝিনাইগাতীতে হত দরিদ্রদের মাঝে ছাগল বিতরণ

করোনায় নতুন বছরে সর্বোচ্চ মৃত্যু ৩১, শনাক্ত ১০০৭

ঈশ্বরদীতে দেশীয় অস্ত্রসহ যুবক আটক

হোমনায় জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৫তম শাহাদাত বার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস পালন উপলক্ষে প্রস্তুতিমূলক সভা

হোমনায় মুজিববর্ষ উপলক্ষে পরিস্কার-পরিচ্ছন্নতা অভিযান