হরিণাকুন্ডুতে পাশাপাশি তাফসীর মাহফিলের আয়োজন ,এলাকাজুড়ে উত্তেজনা

ঝিনাইদহ প্রতিনিধি :
ঝিনাইদহ জেলার হরিণাকুন্ডু উপজেলার ভায়না গ্রামে একই জায়গায় দুইটি তাফসীর ও দোয়া মাহফিল আয়োজন করে প্রতিপক্ষ দুইটি গ্রুপ।এ নিয়ে সহিংসতার আশঙ্কায় একটি মাহফিল বন্ধ করে দিয়েছে পুলিশ।

এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, কয়েকদিন আগে থেকেই ২৭ ও ২৮ নভেম্বর ভায়না মধ্যপাড়া ঈদগাহ ও মসজিদ মাঠে তাফসীরুল কুরআন মাহ্ফিল এর প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছে আয়োজক কমিটি। পাশাপাশি ভায়না আনোয়ার হোসেন প্রতিবন্ধী বিদ্যালয় মাঠে একই তারিখে তাফসীরুল কুরআন মাহফিলের আয়োজন করে প্রচার চালাতে থাকে। উভয় পক্ষই অনুমতির জন্য প্রশাসনের নিকট আবেদন করে। দুই পক্ষকেই প্রথম পর্যায়ে অনুমতি প্রদান করে জেলা প্রশাসন ও পুলিশ। কিন্তু মাহফিল দুইটি ৫০০ গজের মধ্যে আয়োজন করায় হরিণাকুন্ডু থানা পুলিশ আনোয়ার হোসেন প্রতিবন্ধী বিদ্যালয় মাঠের মাহফিলটি বন্ধ করে দেয়।

এদিকে সচেতন মহল জানান, মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে বার্ষিক পরীক্ষা শুরু হয়েছে। ২দিন ব্যাপি মাহফিলের মাইকের শব্দে শিক্ষার্থীদের লেখাপড়ায় বিঘ্ন ঘটবে। পরীক্ষা শেষ হলে এমন আয়োজন করলে ভাল হয়।

ভায়না ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ছমির উদ্দীন বলেন, ভায়না গ্রামের লোকজন বেশ শান্তিপ্রিয়। এখানে দুই পক্ষের বিশৃঙ্খলা বা সহিংসতার কোন সম্ভাবনা নেই। তাছাড়া উপজেলা প্রশাসন বিষয়টি সম্পর্কে অবগত আছেন আশাকরি খারাপ কিছু ঘটবেনা।

এ বিষয়ে হরিণাকুন্ডু থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আসাদুজ্জামান বলেন, ভায়না গ্রামে ভুলক্রমে ডিএসবি থেকে দুইটি তাফসীর মাহফিলের অনুমতি দিলেও আমরা জানার পর পরই সহিংসতা এড়াতে একটি মাহফিল বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com
%d bloggers like this: