সাংবাদিক নির্যাতকারী সন্ত্রাসীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবিতে এপেক্স ক্লাব অব জামালপুরের মানববন্ধন

ক্রাইম পেট্রোল ডেস্ক :

এপেক্স ক্লাব অব জামালপুর এর এপেক্সিয়ান সাংবাদিক শেলু আকন্দের ওপর বর্বরোচিত হামলাকারী সকল সন্ত্রাসীদের গ্রেফতার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবিতে এপেক্স ক্লাব অব জামালপুর এর আয়োজনে মানববন্ধন কর্মসূচি পালিত হয়েছে। মঙ্গলবার ৭ জানুয়ারি সকাল ১১টা থেকে দুপুর ১২টা পর্যন্ত ঘন্টাব্যাপী জামালপুর শহরের দয়াময়ী মোড়ে এই মানববন্ধনের আয়োজন করে।
এপেক্স ক্লাব অব জামালপুর এর প্রেসিডেন্ট এপেক্সিয়ান আলহাজ্ব আবু সায়েম মোহাম্মদ সা’-আদাত উল করীমের সভাপতিত্বে এবং পাস্ট প্রেসিডেন্ট এপেক্সিয়ান কাফি পারভেজ এর সঞ্চালনায় মানববন্ধন চলাকালে বক্তব্য রাখেন এপেক্স ক্লাব অব জামালপুর এর লাইফ মেম্বার জামালপুর প্রেসক্লাবের সভাপতি এপেক্সিয়ান হাফিজ রায়হান সাদা, এপেক্সিয়ান ময়না আকন্দ (আইপিপি ) পাস্ট প্রেসিডেন্ট এপেক্সিয়ান প্রণব বসাক সুবল, পাস্ট প্রেসিডেন্ট এপেক্সিয়ান সৈয়দ আবদুস শাফী, পাস্ট প্রেসিডেন্ট এপেক্সিয়ান হাজী ইউসুফ খান, জামালপুর জেলা প্রেসক্লাবের সভাপতি পাস্ট প্রেসিডেন্ট এপেক্সিয়ান এম জলিল, জুনিয়র ভাইস প্রেসিডেন্ট এপেক্সিয়ান মঞ্জুরুল ইসলাম, সেক্রেটারী এপেক্সিয়ান এনামুল হক তালুকদার রিপন, এপেক্সিয়ান আনোয়ার হোসেন মিন্টু, জামালপুর প্রেসক্লাবের সহ-সভাপতি ইনডিপেনডেন্ট টিভির জেলা প্রতিনিধি দুলাল হোসাইন, সাধারণ সম্পাদক এটিএন ও এটিএন বাংলা টিভির সাংবাদিক মো. লুৎফর রহমান, জামালপুর জেলা প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক মুকুল রানা, জামালপুর প্রেসক্লাবের সদস্য সময় টিভির জাহাঙ্গীর আলম, কালের কন্ঠের মোস্তফা মনজু, দৈনিক বর্তমানের আজিজুর রহমান চৌধুরী, এসএ টিভির ফজলে এলাহী মাকাম, বাংলার চিঠির সম্পাদক মানবাধিকার কর্মী জাহাঙ্গীর সেলিম, কমিউন্সিট পার্টির জামালপুর জেলা শাখার যুগ্ম সম্পাদক মারুফ হাসান মানিক প্রমুখ।
বক্তারা সাংবাদিক শেলু আকন্দের ওপর বর্বরোচিত সন্ত্রাসী হামলার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানান। এ হামলার সাথে জড়িত পৌর কাউন্সিলর হাসানুজ্জামান খান রুনুকে কাউন্সিলর পদ থেকে অব্যাহতি ও শহর আওয়ামী লীগের সদস্য পদ থেকে বহিষ্কার, তার ছেলে রাকিবুল ইসলাম খান রাকিবকে জেলা ছাত্রলীগের ধর্মবিষয়ক পদ থেকে বহিষ্কারের দাবি জানান বক্তারা। বক্তারা অভিযোগ করে আরো বলেন, এপেক্সিয়ান শেলু আকন্দকে নির্যাতন মামলার আসামিদের মধ্যে কয়েকজন আসামি প্রকাশ্যে ঘোরাফেরা করলেও রহস্যজনক কারণে পুলিশ তাদেরকে গ্রেফতার করছে না। ২৪ ঘন্টার মধ্যে হাসানুজ্জামান খান রুনুসহ মামলার অন্যান্য পলাতক আসামিদের গ্রেফতার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান তারা।
উল্লেখ, জামালপুরের স্হানীয় দৈনিক পল্লীকণ্ঠ প্রতিদিনের সাংবাদিক ও জামালপুর প্রেসক্লাবের সদস্য এপেক্সিয়ান শেলু আকন্দ ১৮ ডিসেম্বর রাত ১১টার দিকে সদর উপজেলা ভূমি অফিসের পেছনে ব্রহ্মপুত্র নদের পাড়ে বাইপাস সড়কে সন্ত্রাসী হামলার শিকার হন। সন্ত্রাসীরা পিটিয়ে তার দুটি পা ভেঙে দিয়েছে। তিনি বর্তমানে ঢাকায় পঙ্গু হাসপাতালে মৃত্যুর সাথে লড়ছেন।
এ ঘটনায় এপেক্সিয়ান শেলু আকন্দের ভাই মো. দেলোয়ার হোসেন বাদী হয়ে সদর থানায় দায়ের করা মামলার আসামি জামালপুর পৌরসভার কাউন্সিলর হাসানুজ্জামান খান রুনুর ছেলে জেলা ছাত্রলীগের ধর্মবিষয়ক সম্পাদক রাকিবুল ইসলাম খান রাকিবকে পুলিশ গ্রেফতার করেছে। মামলার অন্যতম আসামি পৌর কাউন্সিলর হাসানুজ্জামান খান রুনু, তুষার খান, তুহিন খান ও স্বজন খানসহ অন্যান্য আসামিরা পলাতক রয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

%d bloggers like this: