সরিষাবাড়ী পৌর মেয়রের লাগামহীন দুর্নীতিতে কাউন্সিলদের অনাস্থা, আওয়ামী লীগ থেকে বহিস্কার

আবু সায়েম মোহাম্মদ সা’-আদাত উল করীম:

জামালপুর জেলার সরিষাবাড়ী উপজেলার পৌরসভার মেয়র রুকুনুজ্জামান রোকনকে আওয়ামী লীগ থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে।

শুক্রবার (০১ মে) দলের জরুরি বৈঠকে রোকনকে দলীয় সহ-সভাপতির পদ থেকে বহিষ্কার করা হয়।

এ বিষয়ে সরিষাবাড়ী উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ছানোয়ার হোসেন বাদশা সংবাদ মাধ্যমকে জানান, সরিষাবাড়ী পৌর আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি পদ থেকে মেয়র রুকুনুজ্জামান রোকনকে বহিষ্কার করা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে দলীয় সিদ্ধান্তের বাইরে নিজের খেয়ালখুশি মতো কাজকর্ম, করোনার ত্রাণ বিতরণে স্বেচ্ছাচারিতা, দলের ভাবমূর্তিবিরোধী কাজের অভিযোগে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

এর আগে শুক্রবার দুপুরে সরিষাবাড়ী পৌরসভার ১২ জন কাউন্সিলর একযোগে সাংবাদিক সম্মেলনে মেয়রকে অনাস্থা দেন। এসময় তারা মেয়রের বিরুদ্ধে ত্রাণ, বার্ষিক উন্নয়ন কর্মসূচি (এডিপি), কবরস্থান ও বাস টার্মিনাল বরাদ্দের টাকা আত্মসাৎ, নারী কেলেঙ্কারি, সরকারি টাকায় নিজ বাড়িতে পুকুর, পার্ক নির্মাণ, কোটি টাকার নিয়োগ বাণিজ্য, টেণ্ডারবাজি, অস্ত্রের মহড়া, নিজের গুম নাটক, কাউন্সিলর ও স্টাফদের মাসিক বেতন-ভাতা না দেওয়া, কাউন্সিলর ও সাধারণ নাগরিকদের হয়রানিসহ ক্ষমতার অপব্যবহারের বিভিন্ন অভিযোগ তুলে ধরেন।

তার কিছুক্ষণ পর মেয়র রোকন তার বাসায় পাল্টা সাংবাদিক সম্মেলন ডেকে কান্নার অভিনয় করে আপত্তিকর নানা মন্তব্য করেন। এটা মেয়র নিজের ফেসবুক লাইভে প্রচার করলে এলাকায় বিভ্রান্তি ও তোলপাড় সৃষ্টি হয়। পরে দলীয় সিদ্ধান্তে তাকে বহিষ্কার করা হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com
%d bloggers like this: