নৌকার প্রার্থীর কর্মীর উপর ‘হামলা’, ১৭ জনের নামে মামলা

 

চকরিয়া (কক্সবাজার) প্রতিনিধিঃ কক্সবাজারের চকরিয়া পৌরসভা নির্বাচনকে ঘিরে নৌকার প্রচারণার সময় কর্মীদের উপর ‘হামলার’ অভিযোগে স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী জিয়াবুল হকসহ ১৭ জনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে(যার মামলা নং-জিআর১৮/২১ইং। সোমবার রাতে নৌকা প্রতিকের মনোনীত মেয়র প্রার্থী মোঃআলমগীর চৌধুরী বাদী হয়ে থানায় মামলাটি করেছেন।

মামলার এজাহার সূত্রে জানা গেছে,স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী জিয়াবুল হকের নেতৃত্বে উল্লেখিত আসামীরা ঘটনার দিন বেলা দেড়টার দিকে নৌকা প্রতিকের প্রচারণার সময় কর্মী সবুজ চৌধুরী, রাজিব খান ও রমেশ খানকে ‘হত্যার’ উদ্দেশ্যে মারধরসহ বৈদ্যুতিক শক দেওয়া হয়(সংক্ষিপ্ত)। দায়েরকৃত মামলার আসামীরা হলেন, স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী জিয়াবুল হক (৪৫), তার ফুফাতো ভাই মিজানুর রহমান (৪২), ভগ্নিপতি মো. দলিল (৪৩), খালাতো ভাই আবদুল কাইয়ুম (২৮), চাচাতো ভাই হাসান আল বশরী (২৮), ভগ্নিপতি মো. পারভেজ (৪০), ভাগনে মো. শোয়াইব (২৫), শিব্বির আহমদ (২৭), হুমায়ুন কবির (৫২), মো. রুবেল (৩৮), মিজানুর রহমান (২৭), আবদুল মজিদ (২৬), নুরুল আবছার (৪২), নুরুল হক (৩৫), সাদ্দাম হোসেন (২৬), মো. মিশুক (২৫) ও আবদুল জলিল (৪২)।

উল্লেখ্য,ঘটনার দিন বিকেল সাড়ে ৪টায় সংবাদ সম্মেলন করেন বর্তমান মেয়র ও দলের মনোনীত মেয়র প্রার্থী মোঃ আলমগীর চৌধুরী। সম্মেলন শেষে তিনি কয়েকশ’ সমর্থক নিয়ে লাঠিসোটা ও ঝাড়ু হাতে উপজেলা সড়কে বিক্ষোভ মিছিল করেন।এতে  ‘হামলাকারীদের’ গ্রেফতারের দাবি জানান।

প্রসঙ্গে,স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী জিয়াবুল হক বলেন, গত নির্বাচনে ভোট ছিনিয়ে মেয়র নির্বাচিত হন মোঃ আলমগীর চৌধুরী।ক্ষমতার লোভে এবারও ফাঁকা মাঠে নির্বাচিত হওয়ার আশায় সত্য ঘটনাকে বিকৃত করে আমাদের বিরুদ্ধে মামলা করেছেন।এই ঘটনায় আমি কোনোভাবেই জড়িত নই।

চকরিয়া থানার ওসি(তদন্ত) জুয়েল ইসলাম বলেন,সোমবার রাতে মামলাটি রুজু করা হয়।তবে ঘটনার বিষয়টি তদন্তের পরে আসামী ধরার অভিযানে নামবে পুলিশ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com
%d bloggers like this: