নীলফামারী আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনের সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন

নীলফামারী প্রতিনিধি॥ আগামী বৃহস্পতিবার (৫ ডিসেম্বর) দিনব্যাপী নীলফামারী জেলা আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। প্রায় ১৩ বছর পর জেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে। এই সম্মেলনকে ঘিরে নেতা-কর্মীদের মাঝে ব্যাপক উৎসাহ- উদ্দীপনা লক্ষ্য করা যাচ্ছে। কে হচ্ছেন জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক তা নিয়ে চলছে ব্যাপক জল্পনা- কল্পনা।
এদিকে, ছাত্রলীগসহ অঙ্গ সংগঠনের নেতা কর্মীরা দিনে রাতে শ্লোগানে শ্লোগানে জানান দিচ্ছে কাউন্সিলারসহ জেলাবাসীকে। কেন্দ্রীয় নেতাদের ছবিসহ ব্যানার ফেস্টুনে ছেয়ে গেছে শহরের প্রধান প্রধান মোড়গুলো। সাজ সাজ রবে এখন নীলফামারী কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার চত্বর।
দলীয় সূত্রে জানা যায়, ২০০৬ সালে জেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলন হলেও কাউন্সিল অধিবেশন হয়নি। ওই সময় আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুল মান্নান ও প্রেসিডিয়াম সদস্য মহিউদ্দিন খাঁন মান্নাসহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ উপস্থিত থেকে ৭১ সদস্য বিশিষ্ট কমিটি ঘোষণা করেন। এরপর আর কোন কাউন্সিল হয় নি। ১৩ বছর পর জেলা আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে।
তবে এবারে শতভাগ সম্মেলনের মাধমে তৃণমূল দলকে গুছিয়ে নিয়েছেন জেলা আওয়ামী লীগ। জেলা শহরের ৯টি ওয়ার্ড ও একটি পৌরসভাসহ ছয় উপজেলায় সম্মেলনের মাধ্যমে কমিটি গঠন করা হয়েছে। দল গঠনের বিষয়টি নিশ্চিত করেন জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি দেওয়ান কামাল আহমেদ ও সাধারণ সম্পাদক অ্যাড. মমতাজুল হক।
ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনের আহবায়ক পৌর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আরিফ হোসেন মুন বলেন, আগামী ৫ ডিসেম্বরের সম্মেলনের জন্য কাউন্সিলরদের নামের তালিকা চূড়ান্ত করা হয়েছে। তিনি বলেন, এবারের সম্মেলনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক, সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।
অনুষ্ঠানের উদ্বোধক হিসেবে উপস্থিত থাকবেন, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ সভাপতি মন্ডলীর সদস্য রমেশ চন্দ্র সেন এমপি, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও রংপুর, রাজশাহী বিভাগের দায়িত্বপ্রাপ্ত রাজনৈতিক নেতা জাহাঙ্গীর কবির নানক,নীলফামারী সদর আসনের সংসদ সদস্য আসাদুজ্জামান নূর, কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক এবিএম মোজাম্মেল হক, নীলফামারী জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি দেওয়ান কামাল আহমেদ ও সাধারণ সম্পাদক অ্যাড. মমতাজুল হক প্রমুখ।
ইতোমধ্যে, সম্মেলনের জন্য জেলা শহরের কেন্দ্রীয় শহিদ মিনার চত্বরে নৌকার আদলে প্যান্ডেল তৈরীসহ সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন করা হয়েছে।
দলীয় সূত্রে জানা গেছে, নীলফামারী জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক পদ বাদে বাকী সকল পদের জন্য লবিং চলছে। আগামী ৫ তারিখের আওয়ামী লীগের সম্মেলনকে কেন্দ্র করে শহরজুড়ে দেখা যাচ্ছে নানা রঙ্গের ব্যানার ও ফেস্টুন। দলের নেতা-কর্মীরা কেন্দ্রীয় নেতাদের মাধ্যমে পূর্নাঙ্গ কমিটির সদস্যের নামের তালিকা প্রকাশের দাবি জানিয়েছেন।
এ ব্যাপারে কাউন্সিলরা অভিযোগ করে বলেন, জেলা নেতৃবৃন্দ অতীতে তাদের পছন্দমত সদস্য বানিয়ে কেন্দ্র থেকে অনুমোদন করে নেয়। এতে প্রকৃত ও ত্যাগী নেতাদের বাদ পড়ার সম্ভাবনা থেকেই যায়। অনুপ্রবেশকারীদের ঠেকাতে এমন দাবি তোলেন তারা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com
%d bloggers like this: