নিখোঁজের ২মাস পর বিলাশকে পরিবারের কাছে ফিরিয়ে দিলেন ডোমার থানা পুলিশ

আনিছুর রহমান মানিক, ডোমার (নীলফামারী) প্রতিনিধি>>
নীলফামারীর ডোমারে ২মাস পর নিখোঁজ বিলাশকে তার পরিবারের কছে ফিরিয়ে দিলেন ডোমার থানা পুলিশ।

দিনাজপুর জেলার বীরগঞ্জ উপজেলার কাজল গ্রামের মৃত গদাধর চন্দ্র রায়ের ছেলে মানুষিক রোগী বিলাশ চন্দ্র রায় (৩৫) গত ৩ মে ওই এলাকা থেকে নিখোঁজ হয়। এ বিষয়ে বীরগঞ্জ থানার বিলাশের বড় ভাই অবিনাশ সাধারণ ডায়রী নং-১২০৫, তারিখ-২৮/০৫/১৯ দায়ের করে। বিগত ২মাস পর ডোমার উপজেলার বোড়াগাড়ী এলাকা থেকে তাকে উদ্ধার করে মঙ্গলবার (৯জুলাই) সন্ধ্যায় ডোমার থানার অফিসার ইনচার্জ মোস্তাফিজার রহমান নিখোঁজ বিলাশকে তার পরিবারের কাছে হস্তান্তর করে। ভাইকে ফিরে পেয়ে তারা অনেক খুশি, এই খুশির পিছনে এক গ্রাম পুলিশের অবদান সব চেয়ে বেশি।

জানা যায়, গত ২মাস পূর্বে ডোমার বাজারে এক মানসিক ভারসাম্যহীন অসুস্থ ব্যক্তিকে ডোমার ফায়ার স্টেশনের সদস্য উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। কর্তব্যরত চিকিৎসক ডাঃ রায়হান বারী চিকিৎসা দিয়ে তাকে সুস্থ করে তুলেন। হাসপাতালে সে মলত্যাগ করে নোংরা করতে থাকে। তার পাশে দাঁড়ায় বোড়াগাড়ী ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ডের গ্রাম পুলিশ সুবল চন্দ্র রায়ের ছেলে গোপাল চন্দ্র রায়।রোগীর গোছল, খাওয়া ও চিকিৎসা সেবা দিয়ে সুস্থ করে তোলে। গণমাধ্যমে তার ছবিসহ প্রচারের পরে ৯জুলাই বেড়িয়ে আসে তার আসল পরিচয়।

এলাকাবাসী জানান, গ্রাম পুলিশ গোপাল যে সেবা -যত্ন করেছে, নইলে তাকে বাঁচানো যেতো না। কেউ দায়িত্ব নেয়নি ওই পাগলের। তার বিদায়কালে আবেগাপ্লুত হয়ে পড়ে গ্রাম পুলিশ গোপাল।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com
%d bloggers like this: