চিলাহাটিতে গরুর খামারের বর্জ্যের দুর্গন্ধে পরিবেশ বিপন্ন, এলাকাবাসী অতিষ্ঠ

আনিছুর রহমান মানিক, ডোমার (নীলফামারী) প্রতিনিধি>>
নীলফামারীর ডোমার উপজেলার চিলাহাটিতে গরুর খামারের বর্জ্যের দুর্গন্ধে পরিবেশ দূষণের কারণে এলাকাবাসীসহ পথচারীরা অতিষ্ঠ হয়ে পড়েছে।
অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, উপজেলার কেতকীবাড়ী ইউনিয়নের ডোমার চিলাহাটি মহা সড়কের পাশের চান্দখানা বসুনিয়া পাড়া গ্রামের মফিজুল ইসলামের ছেলে আজাদ ইসলাম নিজ বাড়ীতে গরুর খামার পরিচালনা করে। বিষয়টি আবাসিক এলাকায় হওয়ায় গরুর মল-মূত্র ছড়িয়ে ছিটিয়ে পড়ায় আশ-পাশে বসবাসরত মানুষজন ভীষণ অসুবিধায় দিনাতিপাত করছে। এছাড়াও বর্জ্যের দুর্গন্ধে পরিবেশ দূষণসহ মানুষ নানা রোগে আক্রান্ত হচ্ছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

এ বিষয়ে প্রতিবেশী মৃত আইনুল ইসলামের ছেলে দোলন ইসলাম গত ২৮জুলাই উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট শাহিনা শবনম বরাবরে খামারের বিষয়ে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। নির্বাহী কর্মকর্তা বিষয়টি আমলে নিয়ে নোটিশ প্রদানের মাধ্যমে আগামী ৫ আগস্ট উভয় পক্ষকে শুনানীর জন্য তলব করেন, যার স্মারক নম্বর- ৭০৬, তারিখ-২৯/০৭/২০।

অভিযোগকারী দোলন ইসলাম জানান, আজাদের গরুর খামারের দুর্গন্ধে এবং দিন রাত গরুর চিৎকারে আমরা বাড়িতে থাকতে পারি না। এমনকি আত্মীয়- স্বজন বাড়িতে এলে বেশিক্ষণ থাকতে চায় না। অপরদিকে চলমান বর্ষায় খামারের গরুর মল-মূত্র আমার পুকুরে গিয়ে অনেক টাকার মাছ বিনষ্ট হয়। বিষয়টি সমাধানের জন্য বেশ কয়েকবার স্থানীয়ভাবে চেষ্টায় ব্যর্থ হয়ে শেষে ইউএনও বরাবর লিখিত অভিযোগ করি।

এলাকাবাসী মৃত খয়রাত আলীর ছেলে আব্দুর রাজ্জাক বলেন, খামারের দুর্গন্ধে আমরা ভীষণ অসুবিধায় আছি, বারবার বলার পরেও তারা কোনো কর্ণপাত করে না।

খামারের পরিচালক আজাদ ইসলাম জানান, আমার খামারে ৬০টি গরু রয়েছে। পশু জিনিষ একটুতো গন্ধ হবেই, এতে কারো অসুবিধার কারণ দেখি না। এর জন্য ইউএনও বরাবর অভিযোগ করেছে দোলন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

%d bloggers like this: