খুলনায় ইট ভাটায় ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযানে জেল-জরিমানা

ক্রাইম পেট্রোল ডেস্ক : খুলনায় শেখ রাসেল ইকো পার্ক এবং আশ্রয়ন প্রকল্পের নদী সংলগ্ন জমি থেকে ইট প্রস্তুতের জন্য অবৈধভাবে মাটি উত্তোলন এবং লাইসেন্স না থাকায় এলএসবিব্রিকস, পুঠিমারি,বটিয়াঘাটা, খুলনা -এর ব্যবস্থাপক মফিজুল ইসলামকে ইট প্রস্তুত ও ভাটা স্থাপন নিয়ন্ত্রণ আইন,২০১৩ অনুসারে ৬ মাসের কারাদণ্ড ও ৫০ হাজার টাকা জরিমানা এবং অনাদায়ে ১ মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড প্রদান করা হয়েছে।একই সাথে ইট ভাটার একজন সহযোগীকে একই আইনে ২০ হাজার টাকা জরিমানা এবং অনাদায়ে ৩ মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড প্রদান করা হয়েছে। গতকাল শুক্রবার ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে এই দণ্ড প্রদান করা হয়। খুলনা জেলা প্রশাসনের দেয়া এক প্রেস রিলিজের মাধ্যমে এ তথ্য জানানো হয়।

 প্রেস রিলিজে বলা হয়, গতকাল শুক্রবার ১৫ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ বিকেল সাড়ে ৩ টায় শেখ রাসেল ইকো পার্ক, খুলনা এবং আশ্রয়ন প্রকল্পের নদী সংলগ্ন জমি থেকে ইট প্রস্তুতির জন্য অবৈধভাবে মাটি উত্তোলন  এবং লাইসেন্স না থাকায়  এল এস বি ব্রিকস,পুঠিমারি, বটিয়াঘাটা,খুলনা এর ব্যবস্থাপক মফিজুল ইসলামকে ইট প্রস্তুত  ও ভাটা স্হাপন(নিয়ন্ত্রণ)  আইন,২০১৩ অনুসারে ৬ মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড এবং ৫০ হাজার টাকা জরিমানা এবং  অনদায়ে ১ মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেওয়া হয়। একই সাথে ইট ভাটার একজন সহযোগীকে একই আইনে ৩ মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড এবং ২০ হাজার টাকা জরিমানা এবং অনাদায়ে ১ মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেয়া হয়। মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করেন জেলা প্রশাসন, খুলনার বিজ্ঞ এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট  জাবের মোঃ সোয়াইব।
 অবৈধ ইট ভাটা এবং পরিবেশের ক্ষতিসাধনকারীর বিরুদ্ধে জেলা প্রশাসনের অভিযান অব্যাহত থাকবে বলেও প্রেস রিলিজে জানানো হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com
%d bloggers like this: