crimepatrol24
২৪শে এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, এখন সময় সকাল ৯:৩৫ মিনিট
  1. অনুসন্ধানী
  2. অপরাধ
  3. অর্থনীতি
  4. আইটি বিশ্ব
  5. আইন-আদালত
  6. আঞ্চলিক সংবাদ
  7. আন্তর্জাতিক
  8. আফ্রিকা
  9. আবহাওয়া বার্তা
  10. আর্কাইভ
  11. ইউরোপ
  12. ইংরেজি ভাষা শিক্ষা
  13. উত্তর আমেরিকা
  14. উদ্যোক্তা
  15. এশিয়া

ক্লুলেস হত্যা মামলার রহস্য উদঘাটন করলো ঝিনাইদহ পিবিআই

প্রতিবেদক
মো: ইব্রাহিম খলিল
মার্চ ২৮, ২০১৯ ৩:৫৬ অপরাহ্ণ

জাহিদুর রহমান তারিক,ঝিনাইদহঃ
নিহত হওয়ার ১৫ মাস পর চাঞ্চল্যকর সেলিম হত্যার মোটিভ ও ক্লু উদ্ধার করেছে ঝিনাইদহ পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই)। মোটিভ ও ক্লু উদ্ধারের পাশাপাশি খুনি চক্রের এক সদস্যকেও গ্রেফতার করেছে পিবিআই। বৃহস্পতিবার দুপুরে ঝিনাইদহ পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন কার্যালয়ে এক প্রেস ব্রিফিংয়ে এসব তথ্য জানান পুলিশ সুপার আবু আশ্রাফ। এ সময় পরিদর্শক (প্রশাসন) আব্দুর রব ও মামলার তদন্ত কর্মকর্তা পরিদর্শক আমির আব্বাস উপস্থিত ছিলেন।

পুলিশ সুপার আবু আশ্রাফ জানান, শৈলকুপার শেখপাড়া এলাকায় ইজিবাইক চালাতে এসে খুন হয় কুষ্টিয়ার কামারখালী থানার কুলশীবাসা গ্রামের বাসিন্দা সেলিম। তিনি ওই গ্রামের জোয়াদ আলীর একমাত্র ছেলে। যাত্রীবেশী দুই খুনি ইজিবাইক ছিনতাই করতে সেলিমকে হত্যার পর তার লাশ শৈলকুপা উপজেলার ত্রীবেনি গ্রামের একটি খালে ফেলে রাখে। এ বিষয়ে মামলা হলে শৈলকুপা থানার এসআই ব্রজেন ঘোষ হত্যার মোটিভ ও ক্লু উদ্ধার করতে ব্যর্থ হয়। এরপর মামলাটি স্বউদ্যোগে তদন্তের জন্য গ্রহণ করে ঝিনাইদহ পিবিআই। মামলার তৃতীয় তদন্ত কর্মকর্তা হিসেবে আমির আব্বাস প্রযুক্তি ও সোর্সের মাধ্যমে নিহত সেলিমের হারিয়ে যাওয়া মোবাইলটি উদ্ধার করে। এই মোবাইল উদ্ধারের পরই ঘাতক চক্রকে খুঁজে পায় পিবিআই। ধরা পড়ে এই চক্রের প্রধান শৈলকুপার ত্রীবেনি গ্রামের কারিগর পাড়ার মতিয়ার রহমানের ছেলে আশরাফুল। গ্রেফতার আশরাফুল সেলিম হত্যার পুরো ঘটনা আদালতে স্বীকার করে জবানবন্দি দেয়।

পুলিশ সুপার আবু আশ্রাফ বলেন, এভাবেই ক্লুলেস একটি হত্যা মামলার রহস্য উন্মোচনের পাশাপাশি প্রকৃত হত্যাকারীদের গ্রেফতার করতে সমর্থ হয় পিবিআই। তিনি বলেন, বেওয়ারিশ লাশের পরিচয় সনাক্ত করতে ঝিনাইদহ পিবিআই’র প্রযুক্তি সম্ভার সমৃদ্ধ হয়েছে। এখন যে কেউ এই সেবা আমার কাছ থেকে নিতে পারে।

Share This News:

সর্বশেষ - লাইফ স্টাইল

আপনার জন্য নির্বাচিত